আজারবাইজান-আর্মেনিয়ার লড়াই অব্যাহত, নিহত অন্তত ২১

Spread the love
ফাইল ছবি

বিবাদপূর্ণ নাগোরনা-কারাবাখ অঞ্চল ঘিরে প্রতিবেশি দুই দেশ আজারবাইজান এবং আর্মেনিয়ার সামরিকবাহিনীর মধ্যে টানা দ্বিতীয় দিনের মতো পাল্টাপাল্টি গোলাবর্ষণের ঘটনা ঘটেছে। এবং দুই দেশের সামরিক বাহিনী ভারী অস্ত্র ব্যবহার করেছে বলে অভিযোগ করেছে উভয় পক্ষই।

ব্যাপক বিবাদপূর্ণ নাগোরনো-কারাবাখ অঞ্চলে দুই দেশের লড়াইয়ে অন্তত ২১ জনের প্রাণহানি ও আরও শতাধিক আহত হয়েছে। ২০১৬ সালের পর এবারই প্রথম এই অঞ্চলে বড় ধরনের সংঘাতে জড়িয়ে পড়েছে দুই দেশ। এর ফলে দক্ষিণ ককেশাস অঞ্চলের স্থিতিশীলতা নিয়ে গভীর উদ্বেগ দেখা দিয়েছে। বিশ্ব বাজারে তেল এবং গ্যাসের সরবরাহের পাইপলাইনের অন্যতম করিডর হিসেবে পরিচিত এই ককেশাস অঞ্চল।

সাবেক সোভিয়েত ইউনিয়নভূক্ত দেশ দুটির মাঝে নাগোরনো-কারাবাখ ঘিরে কয়েক দশকের পুরনো সংঘাত রয়েছে। আজারবাইজানের ভেতরে অবস্থিত জাতিগত আর্মেনীয়দের শাসনাধীন নাগোরনা-কারাবাখকে বিচ্ছিন্ন হয়ে যাওয়া অঞ্চল হিসেবে মনে করে আজারবাইজান।

আর্মেনিয়ার প্রতিরক্ষামন্ত্রীর বরাত দিয়ে রুশ সংবাদসংস্থা ইন্টারফ্যাক্স বলছে, সংঘাতে ২০০ আর্মেনীয় আহত হয়েছেন। এদিকে, নাগোরনো-কারাবাখ বলছে, তাদের আরও ১৫ জনের বেশি সৈন্য নিহত হয়েছেন। এর আগে, রোববার আজারবাইজানের বিমান এবং কামানের গোলা নিক্ষেপে ১৬ জন সৈন্য নিহত ও শতাধিক আহত হয়েছেন বলে জানায় নাগোরনো-কারাবাখ কর্তৃপক্ষ।

আমাদেরকিন্ঠ/বিএইচএম

Related posts